দৃষ্টি আকর্ষণঃ
আমাদের ভূবনে স্বাগতম। আপনাদের সহযোগিতাই আমাদের পাথেয়।
সংবাদ শিরোনাম
তিতাস উপজেলা ছাত্রলীগের কমিটি ঘোষণা।। সভাপতি তুষার সাধারণ সম্পাদক খায়রুল ৫ অক্টোবর শুভদিন শিক্ষা জাতীয়করণের ঘোষণা দিন কমেছে নমুনা পরীক্ষা বেড়েছে শনাক্তের হার! শুরু হয়েছে কঠোর লকডাউন।। মানতে হবে যেসব বিধিনিষেধ দুঃসংবাদের ভিড়ে সুসংবাদ।। ভ্যাকসিন থেকে কেউ বাদ যাবে না-প্রধানমন্ত্রী বিপর্যস্ত শিক্ষাপঞ্জি।। চরম বিপাকে শিক্ষক-শিক্ষার্থী ও অভিভাবকরা মাননীয় প্রধানমন্ত্রী মুজিববর্ষেই শিক্ষা জাতীয়করণ চাই–মোহাম্মদ আলাউদ্দিন মাস্টার ২৩ জুলাই থেকে সত্যিই সর্বাত্মক লকডাউন! বঙ্গবন্ধু পরিষদ তিতাস উপজেলা শাখার বর্ধিত সভা ও মাস্ক বিতরণ শেখ হাসিনার জীবন বড়ই কষ্টের এবং বেদনাদায়ক!
চারিদিকে টাকার খনি অথচ বেসরকারি শিক্ষকদের চোখে পানি!

চারিদিকে টাকার খনি অথচ বেসরকারি শিক্ষকদের চোখে পানি!

মোহাম্মদ আলাউদ্দিন ভূঞা।। দেশব্যাপী যখনই শুদ্ধি অভিযান পরিচালনা করা হয়, তখনই কেঁচো খুড়তে গিয়ে সাপ বেড়িয়ে আসে। যারাই ধরা পড়ছেন, তাদের নিকটই কোটি কোটি টাকা! সাথে বাড়ি, গাড়ি কোনটারই কমতি নেই। অনেকের আবার মালয়েশিয়া, সিঙ্গাপুর, কানাডা কিংবা অন্য কোন দেশে রয়েছে বাড়ি গাড়ি। কানাডার বেগমপাড়ার কাহিনী কারোরই অজানা নয়। নামে বেনামে স্থাবর-অস্থাবর সম্পদের কোন হিসাব নেই। তাদের পাহাড়সম বিত্ত বৈভবের কথা শুনলে পিলে চমকে উঠে। এসব ঘটনাবলী দেখে মনে হচ্ছে দেশে অসংখ্য টাকার খনি রয়েছে। অথচ মানুষ গড়ার কারিগর শিক্ষকরা সংসার চালাতে হিমসিম খাচ্ছে। সংসারের ঘানি টানতে গিয়ে টাকার অভাবে তাদের চোখে অঝর ধারায় ঝরছে পানি।
অপ্রিয় হলেও সত্য, এদেশের সরকারি চাকরিজীবীদের মাসিক বেতন এবং মাসিক খরচের হিসাব মেলানো কঠিন। অনেকরই বেতনের চেয়ে বাসাভাড়া বেশি। সন্তানের লেখাপড়া, চিকিৎসা, বিনোদন, দৈনন্দিন খরচ ইত্যাদি তো রয়েছেই। তারপর বাড়ি গাড়ি আরও কত কি। এখন প্রশ্ন হচ্ছে এ টাকার উৎস কী? সোজা উত্তর উপরি বা ঘুষ। দুর্নীতির রাহুগ্রাস তাদেরকে অন্ধ বানিয়ে ফেলেছে। সততা, কর্তব্যপরায়নতা, ন্যায়বোধ, দেশপ্রেম এখন সোনার হরিণ। এগুলো এখন একমাত্র জাদুঘরেই শোভা পায়। অবশ্য সৎ ও নিষ্ঠাবান কর্মকর্তা-কর্মচারি নেই এমনি বলছি না। তবে তাদের সংখ্যা অতি নগণ্য।
সরকারি চাকরিজীবীরা উচ্চতর বেতনের পাশাপাশি উপরি বা ঘুষ গ্রহণের সুযোগ থাকলেও বেসরকারি শিক্ষকদের বেলায় এ সুযোগ নেই বললেই চলে। কারো ইচ্ছে থাকলেও ঘুষ পাওয়ার কোন ক্ষেত্র নেই। শুধুমাত্র ইংরেজি ও গণিত শিক্ষকরা বাড়তি শ্রম দিয়ে বাড়তি আয় করছেন। হালে সরকার এ প্রাইভেট টিউশনির উপরও নিষেধাজ্ঞার খড়গ ঝুলিয়ে রেখেছেন। অন্যান্য শিক্ষকরা সামান্য বেতন দিয়ে কোনরকমে সংসার চালাচ্ছেন। শিক্ষকদের বাড়ি ভাড়া নামমাত্র ১০০০/- টাকা। চিকিৎসা ভাতা ৫০০/- টাকা। শিক্ষা ও বিনোদন ভাতা একেবারেই নেই। উৎসব ভাতা মুল বেতনের ২৫% যাহা হাস্যকর। বোঝার উপর শাকের আটি মুল বেতন থেকে অবসর ও কল্যাণের নামে কেটে নেয়া হচ্ছে ১০%।
আমলা, ব্যবসায়ী, রাজনীতিবাদ, ঠিকাদার এমনকি ক্ষমতাসীন দলের অনেক হোমরা চোমরারাও যখন টাকার বিছানায় ঘুমোচ্ছে তখন বেসরকারি শিক্ষকরা আর্থিক দীনতায় হাহুতাশ করে গুমরে গুমরে কাঁদছে। নিরবে চোখের জল ফেলছে। দীর্ঘদিন রাজপথে আন্দোলনের মাধ্যমে নন এমপিও শিক্ষকরা সম্প্রতি এমপিও পেলেও বাদ পড়েছে অর্ধেকের চেয়েও বেশি শিক্ষক। তাদের চোখের জল মুছে দেবার কেউ নেই।
শিক্ষকদের ভাগ্যোন্নয়ন ব্যাতিরেকে শিক্ষার কাঙ্খিত লক্ষ্য অর্জন করা আদৌ সম্ভব নয়, এ সরল হিসাবটি সবার জানা থাকলেও সমস্যা সমাধানে কার্যকরি কোন পদক্ষেপ পরিলক্ষিত হচ্ছে না।
মাননীয় প্রধানমন্ত্রী, আপনাকে ছাড়া এদেশে কোন কিছুই হয় না। সবকিছু আপনাকেই করতে হয়। কথাটি আপনার মনঃপুত না হলেও দেশবাসির মনের কথা এটি। আপনি সবই জানেন ও বুঝেন। বেসরকারি শিক্ষকদের ভাগ্যোন্নয়ন এবং অর্থনৈতিক মুক্তিও আপনাকে ছাড়া হবে না। তাই আপনার একজন সুহৃদ হিসেবে এ অধমের মিনতি, ২০২১ সালে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান এর জন্মশত বার্ষিকীতে এমপিওভূক্ত শিক্ষকদের চাকরি জাতীয়করণ করে তাদের চোখের পানি মুছে দিন। তাদের চোখে জলধারা বজায় রেখে আজীবন বৈষম্য ও শোষণের বিরূদ্ধে সংগ্রামী বিজয়ী বীর বাংলার অবিসংবাদিত নেতা মুক্তি ও আলোর দীশারী বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের সোনার বাংলা বিনির্মাণ কতটা সার্থকতা পাবে তা ভেবে দেখার এখনই চূড়ান্ত সময়। প্রত্যাশা করছি আপনার ঐতিহাসিক আরও একটি সিদ্ধান্ত জাতিকে এগিয়ে নিয়ে যাবে অনেক দুর। আপনি পেরেছেন, পারেন এবং পারবেন। আপনার কারণেই বাংলাদেশ আজ বিশ্বে উন্নয়নের রোল মডেল। আপনি নিজেও খ্যাতির চূড়ায় আসীন।
লেখকঃ প্রধান শিক্ষক, পীর কাশিমপুর আর এন উচ্চ বিদ্যালয়, মুরাদনগর, কুমিল্লা। ০১৮১৮৬৬৪০৩৪, E-mail: alauddinhm71@gmail.com

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

© All rights reserved © 2019 www.kalpurushnet.com